আজঃ শুক্রবার, সেপ্টেম্বর ২২, ২০১৭ | ১২:১৮ pm

কাশ্মীর নিয়ে আলোচনায় লেখিকা অরুন্ধতীকে আমন্ত্রণ পাকিস্তানের

নিজস্ব প্রতিবেদক

September 3, 2016 at 9:31 am, Last Update: September 3, 2016 at 8:35 am

Arundhatiঅশান্ত কাশ্মীর উপত্যকা নিয়ে বক্তব্য পেশ করতে পাকিস্তানের তরফে আমন্ত্রণ জানানো হল সাহিত্যিক ও মানবাধিকার কর্মী অরুন্ধতী রায়কে। পাকিস্তানের পাঞ্জাব প্রদেশের বিধানসভার সদস্য শেখ আল্লাউদ্দিন অরুন্ধতী রায়কে আমন্ত্রণের সুপারিশ করেন, খবর পাক সংবাদপত্র ডন অনলাইনের।

অন্যদিকে, পাঞ্জাব বিধানসভায় শ্রম ও মানবসম্পদ উন্নয়নমন্ত্রী রাজা আশফাক সরওয়ার জানিয়েছেন, কাশ্মীর প্রসঙ্গে পাক বিদেশমন্ত্রকের পরামর্শ মোতাবেক চলা হবে। পাঞ্জাবের ট্রেজারি বেঞ্চের সদস্য রমেশ সিং অরোরা বিধানসভায় কেন্দ্রীয় প্রতিরক্ষামন্ত্রী মনোহর পারিক্করের বক্তব্যের তুমুল সমালোচনা করেন। তাঁর দাবি, ওই বিবৃতির জন্য পাক বিদেশমন্ত্রক অবিলম্বে পাকিস্তানে নিযুক্ত ভারতীয় রাষ্ট্রদূত গৌতম বাম্বাওয়ালেকে সমন পাঠাক। অরোরার মতে, নয়াদিল্লি শুধু যে কাশ্মীরিদের উপর অত্যাচার করছে তাই নয়, উপত্যকায় অশান্তি ছড়ানোর মতো গুরুতর অভিযোগের জন্য ইসলামাবাদকে দায়ী করছে।

সম্প্রতি, মার্কিন প্রতিরক্ষা সচিব অ্যাশটন কার্টারের সঙ্গে এক যৌথ সাংবাদিক বৈঠকে কাশ্মীর সমস্যার জন্য পাকিস্তানকে সরাসরি দায়ী করেন পারিক্কর। বলেন, “কাশ্মীরে গণতান্ত্রিক উপায়ে নির্বাচিত সরকার রয়েছে। কাশ্মীর সমস্যা নিয়ে ভারত সরকারও সদা সতর্ক ও ওয়াকিবহাল।” এরপরেই পারিক্কর মন্তব্য করেন, সীমান্তের ওপার থেকে দুষ্কৃতীরা উপত্যকায় ঢুকে বিক্ষিপ্ত অশান্তি ছড়াচ্ছে, গুটিকয়েক অপরাধীর জন্য গোটা ভূস্বর্গের মানুষকে ঝামেলা পোহাতে হচ্ছে। কেন্দ্রীয় প্রতিরক্ষামন্ত্রীর এই মন্তব্যে বেজায় চটেছে ইসলামাবাদ। রাজনৈতিক মহলের একাংশের বক্তব্য, আন্তর্জাতিক মঞ্চে পাকিস্তানের মুখোশ খুলে দিয়েছেন পারিক্কর। এখন পাঞ্জাব পার্লামেন্টের সচিব রানা আরশাদ পাক প্রধানমন্ত্রী নওয়াজ শরিফের কাছে আবেদন জানিয়েছেন, দ্রুত একটি কমিটি গঠন করে আন্তর্জাতিক মঞ্চে ভারতের বক্তব্যের বিরোধিতা করুক ইসলামাবাদ।

বিধানসভার অন্যান্য সদস্যরাও কাশ্মীর প্রসঙ্গ তুলে ভারত সরকারের সমালোচনা করে। গত ৯ জুলাই ভারতীয় সেনার গুলিতে হিজবুল জঙ্গি বুরহান ওয়ানির মৃত্যুর পর থেকে উত্তপ্ত ভূস্বর্গ। বিক্ষোভকারীদের সঙ্গে সেনা ও পুলিশের দফায় দফায় সংঘর্ষে আহত অন্তত কয়েক হাজার, নিহত ৬৯।

টুইটারে ফলো করুনঃ